শিরোনাম:
●   ভোলার কর্ণফুলী-৩ লঞ্চে চাঁদপুরের মোহনায় অগ্নিকাণ্ড ●   উদ্ভাস-উন্মেষ-উত্তরণ এখন দ্বীপ জেলা ভোলায় ●   ভোলা আইনজীবী সমিতির নির্বাচনে আ’লীগের সমর্থিত প্রার্থী বশীর উল্লাহ সভাপতি, সম্পাদক মাহাবুবুল হক লিটু নির্বাচিত ●   ভোলা জেলা প্রশাসকের সাথে আইনজীবী সমিতির মতবিনিময় ●   চরফ্যাশনে দুর্বৃত্তদের আগুনে পুড়লো চট্টগ্রামগামী বাস ●   ডয়েসে ভ্যালী ও জাতীয় গণমাধ্যম ইনিস্টিটিউটের যৌথ আয়োজনে প্রিন্ট পত্রিকার সম্পাদকদের কর্মশালা সম্পন্ন ●   ভোলায় চারটি সহ সারাদেশে ১৫০ সেতু উদ্বোধন করেছেন প্রধানমন্ত্রী ●   ভোলায় ৩৩৫ কোটি টাকার শহর রক্ষা বাঁধ এখন মরণ ফাঁদ! ●   ভোলায় জমি দখলের খবর পেয়ে স্ট্রোক করে মারা গেলেন প্রবাসী ●   ভোলার নবাগত জেলা প্রশাসকের সাথে আইনজীবী সমিতির মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত
ভোলা, রবিবার, ১৯ মে ২০২৪, ৫ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১

ভোলার সংবাদ
মঙ্গলবার ● ২০ মার্চ ২০১৮
প্রথম পাতা » বিশ্ব » গুপ্তচর থেকে প্রেসিডেন্ট: পুতিনের জীবনের ১০টি গুরুত্বপূর্ণ মুহূর্ত
প্রথম পাতা » বিশ্ব » গুপ্তচর থেকে প্রেসিডেন্ট: পুতিনের জীবনের ১০টি গুরুত্বপূর্ণ মুহূর্ত
৬৫৪ বার পঠিত
মঙ্গলবার ● ২০ মার্চ ২০১৮
Decrease Font Size Increase Font Size Email this Article Print Friendly Version

গুপ্তচর থেকে প্রেসিডেন্ট: পুতিনের জীবনের ১০টি গুরুত্বপূর্ণ মুহূর্ত

---

ডেস্ক: ভ্লাদিমির পুতিন রোববার রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে জয়ী হয়ে চতুর্থ বারের মত ক্ষমতায় এসেছেন ১৮ বছর আগে প্রথমবার ক্ষমতায় এসেই তিনি রাশিয়ার জনগণের উপর ক্রেমলিনের প্রভাব আরও শক্তিশালী করেন পুতিন সোভিয়েত ইউনিয়নের গোয়েন্দা সংস্থা কেজিবির অফিসার হিসেবে ক্যারিয়ার শুরু করেন সেখান থেকে ধীরে ধীরে পরিণত হন অন্যতম প্রভাবশালী বিশ্বনেতা হিসেবে

৬৫-বছর-বয়সী পুতিনের জীবনের কয়েকটি গুরুত্বপূর্ণ ঘটনা পাঠকদের জন্য দেয়া হল:

- অক্টোবর , ১৯৫২: লেনিনগ্রাদের (বর্তমান সেন্ট পিটার্সবার্গ) একটি দরিদ্র শ্রমজীবী পরিবারে জন্ম গ্রহণ করেন ভ্লাদিমির পুতিন

- ১৯৯৮: এফএসবি সিকিউরিটি সার্ভিসের প্রধান হিসেবে নিযুক্ত হন সোভিয়েত আমলের গোয়েন্দা সংস্থা কেজিবি অবলুপ্ত হওয়ার পর এফএসবি গঠন করা হয় পুতিন ১৯৭৫ সালে কেজিবিতে যোগদান করেছিলেন

- ১৯৯৯: রাশিয়ার তৎকালীন প্রেসিডেন্ট বরিস ইয়েলৎসিনের প্রধানমন্ত্রী হিসেবে চেচনিয়ার বিদ্রোহীদের দমন করতে দ্বিতীয় বারের মতো যুদ্ধ শুরু করেন পুতিন ১৯৯৯ সালের ৩১ ডিসেম্বর ইয়েলৎসিন পদত্যাগ করলে পুতিন প্রেসিডেন্ট হিসেবে দায়িত্ব গ্রহণ করেন পরে ২০০০ সালের মার্চে আনুষ্ঠানিকভাবে নির্বাচিত হন তিনি

- ২০০৪: পুনরায় প্রেসিডেন্ট হিসেবে নির্বাচিত হন পুতিন

- ২০০৮: সংবিধানের সর্বোচ্চ সীমা অনুযায়ী পুতিনের দ্বিতীয়বার ক্ষমতায় থাকার মেয়াদ শেষ হয়ে যায় তার শিষ্য দিমিত্রি মেদভেদেভের কাছে ক্ষমতা হস্তান্তর করে প্রধানমন্ত্রী হিসেবে দায়িত্বগ্রহণ করেন পুতিন

- ২০১২: আবারও রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট হিসেবে ফিরে আসেন পুতিন এবার রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট হিসেবে দায়িত্ব পালনের মেয়াদ চার বছর থেকে বাড়িয়ে ছয় বছর করা হয় বিরোধী দলগুলোর নজিরবিহীন প্রতিবাদের মুখেও ক্ষমতা গ্রহণ করেন তিনি

- ২০১৩: তিন দশকের বিবাহিত জীবন অতিবাহিত করার পর পুতিন লুদমিলাকে ডিভোর্স দেন লুদমিলা পুতিনের দুই কন্যা রয়েছে

- ২০১৪: ক্রিমিয়ার ইউক্রেনিয়ান পেনিনসুলা দখল করে নেন পুতিন এর ফলে কোল্ড ওয়ারের পর পশ্চিমা বিশ্বের সাথে রাশিয়ার সবচেয়ে কঠিন কূটনৈতিক সঙ্কট শুরু হয়

- ২০১৫: সিরিয়ার প্রেসিডেন্ট বাশার আল আসাদের বাহিনীকে সামরিক সহায়তা দেয়া শুরু করেন পুতিন

- ২০১৭: ডিসেম্বর মাসে পুতিন ঘোষণা দেন ২০১৮ সালের মার্চে তিনি আবার ছয় রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট হয়ে থাকার জন্য নির্বাচনে অংশ নিবেন

-পিডি/এফএইচ

 





আর্কাইভ

পাঠকের মন্তব্য

(মতামতের জন্যে সম্পাদক দায়ী নয়।)

© 2024 দ্বীপের সাথে ২৪ ঘণ্টা Bholar Sangbad, সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত।